করোনা যুদ্ধ জয়ের প্রত্যাশায় বিরামহীন যুদ্ধ করছেন এড. মাহবুবল আলম খোকন

ব্রাহ্মণবাড়িয়া: করোনাভাইরাস মোকাবেলায় বিশ্ব আজ মহা সংকটের সীমানায় ঠেকেছে। যে যুদ্ধে বিশ্বের পরাক্রমশালী দেশও আজ নিমজ্জমান। যে যুদ্ধে কোন বুলেট, কোন মিজাইল বা কোন পারমানবিক বোমাও ব্যবহার হয়নি সে যুদ্ধে মাত্র জৈব রাসায়নিক করোনাভাইরাস ব্যবহার করে পৃথীবিকে আজ সংকটাপন্ন করা হয়েছে। সে যুদ্ধ জয়ের প্রত্যাশায় বিরামহীন যুদ্ধ  করছেন এড. মাহবুবুল আলম খোকন।

তিনি গত ২৬ মার্চ থেকে মাসব্যাপী পৌর শহরের ১২টি ওয়ার্ডে থাকা বিভিন্ন মহল্লায় জীবাণুনাশক ঔষধ ছিটানোর কর্মসূচি সমাপ্ত করেছেন। জেলা জর্জ কোর্ট, প্রেস ক্লাব, ডাক্তার, নার্সদের সেনিটাইজার ও মাস্ক বিতরণ করেন। তিনি শারীরিক প্রতিবন্ধী ও মুক বধির, কর্মকার সম্প্রদায়, কর্মহীন মাইক্রোবাস চালকদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেন। রাতের আঁধারে মধ্যবিত্ত পরিবারের মাঝে নগদ অর্থ প্রদান করেন। শহরের ১২টি ওয়ার্ডে থাকা সকল মসজিদের ঈমামদেরকে ইফতার সামগ্রী প্রদান করেন।

এ বিষয়ে এড. মাহবুবুল আলম খোকনের সাথে কথা বল্লে তিনি জানান, করোনা মোকাবেলায় সারা বিশ্বই আজ এক করুণ পরিণতির মুখে অবস্থান। ইতালির প্রধানমন্ত্রীও উপরওয়ালার দিকে হাত পেতেছেন সেখানে আমাদের বঙ্গবন্ধু তনয়া আমাদের জননেত্রী, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আহবানে ও আমাদের সদর ৩ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য র.আ.ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরীর নির্দেশনায় আমি ব্যক্তি উদ্যোগে ক্ষুদ্র প্রয়াস নিয়ে এ যুদ্ধ জয়ের প্রত্যাশায় পৌর শহরের জনগণের পাশে থাকার জন্য এগিয়ে এসেছি।

তিনি জানান, আমরা জানি মসজিদের ইমামগণ কারো কাছে যায় না, তাঁরা সর্বোপরি বেতনও কম। আমার ঘোষিত ঈমামদের খাদ্যসামগ্রী প্রদানের মাঝে রবিবার ০৩মে পৌর শহরের ৭নং ওয়ার্ড গোকর্ণঘাট, আমিনপুর ও ছয়বাড়িয়া এলাকার মসজিদের ১৯জন ঈমামদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী প্রদান করেছি। এছাড়াও মন্দিরের পুরোহিতদেরও খাদ্যসামগ্রী প্রদান করার পরিকল্পনা হাতে নিয়েছি। শহরে অবস্থিত সকল সরকারি অফিস, আদালত, ব্যাংক, বাজার ও মার্কেটের দারোয়ানদের খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করবো। পত্রিকা বিতরণকারী ব্যক্তিদেরও খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করার পরিকল্পনা হাতে নিয়েছি।

গোকর্ণঘাট এড. আবদুল বাসিরে বাড়িতে স্থানীয় ওয়ার্ড মসজিদের ঈমামদের খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করার সময় উপস্থিত ছিলেন ৭নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগ সভাপতি ইয়াকুব আলী ডাক্তার, এড. আবদুল বাসির, সরদার কুদ্দুস মিয়া, হাজী সৈয়দ মিয়া, এড. আবু ইউসুফ, এড. মোশারফ, বশির, সেলিম, ৭নং ওয়ার্ড যুবলীগ, ছাত্রলীগ, কবীর হোসেন কানু ও আশিক প্রমূখ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন